কোম্পানীগঞ্জে আবারও বাস ভাঙচুর

কোম্পানীগঞ্জে আবারও বাস ভাঙচুর

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের মধ্যে চলমান বিরোধের জের ধরে আবারও বাস স্ট্যান্ডে হামলা ও ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। হামলাকারীরা ৫টি বাস ভাঙচুর করেছে বলে অভিযোগ ক্ষতিগ্রস্তদের। শুক্রবার সন্ধ্যায় বসুরহাট নতুন বাস স্ট্যান্ডে এ ঘটনা ঘটে।

ড্রিম লাইন গাড়ির পরিচালক আওয়ামী লীগ নেতা সবুজ চৌধুরী জানান, শুক্রবার সন্ধ্যায় বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জার ভাই শাহাদাত হোসেনের নেতৃত্বে তার কয়েকজন সমর্থক নতুন বাসস্ট্যান্ডে হামলা চালায়। এসময় তারা ড্রিম লাইন সার্ভিসের তিনটি এসি ও দুটি ননএসি বাসে ব্যাপক ভাঙচুর চালায়। এর কিছুদিন আগেও একই সন্ত্রাসীরা ড্রিম লাইন বাস ভাঙচুর করেছিল। ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের প্রস্তুতি চলছে বলে তিনি জানান।

এদিকে দুপুর ২টার দিকে আবু নাছের চৌধুরী জামে মসজিদ এলাকায় জুমার নামাজের পর মেয়র মির্জা ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদলের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আজম পাশা চৌধুরী রুমেল, তার ভাতিজা মঞ্জিল চৌধুরী, কামরান পাশা চৌধুরী ও সাবেক কাউন্সিলর শিমুল চৌধুরী আহত হন। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি শান্ত করে। আহতদের কোম্পানীগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি মীর জাহেদুল হক রনি বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

Comments